খুঁজুন
বৃহস্পতিবার, ৩০শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১৬ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
আজঃ বৃহস্পতিবার, ৩০শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
শিরোনাম:
বাংলাদেশে তীব্র তাপপ্রবাহ( Heat Wave Warning ): তিন দিনের সতর্কতা জারি ইরানে ইসরাইলের হামলা : মধ্যপ্রাচ্যে বেজে উঠেছে যুদ্ধের দামামা স্ন্যাপড্রাগন এক্স ল্যাপটপ: প্রজন্মের পরিবর্তনের সাক্ষী এক চার্জে মোবাইল চলবে ৫০ বছরঃ চীনা প্রযুক্তিতে পারমাণবিক ব্যাটারি তৈরির নতুন সূচনা বাংলাদেশের ১১ জেলায় সন্ধ্যার মধ্যে ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ৬০ কিলোমিটার বেগে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে ইসরায়েলের স্বাধীন সিদ্ধান্ত: ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রীর সাথে নেতানিয়াহুর বৈঠক বিজ্ঞাপনী সংস্থাকে ওয়ালটনের আইনি নোটিশ – রূপান্তর নাটকের বিজ্ঞাপন প্রচার নিয়ে বিতর্ক ট্রান্সজেন্ডার নাটক ‘রূপান্তর’ এবং জোভানের প্রতিক্রিয়া যাকাতের নিসাব ও বন্টনের খাত কুকি-চিন ইস্যু সরকারের নাটক : মঈন খান কেন প্রতিদিন আপনার ভিটামিন সি গ্রহণ করা উচিত জেনে নিন প্রকাশ হলো বাংলাদেশ-ভারত টি-টোয়েন্টি সিরিজের সূচি গুলি করে হত্যার পর আবারও বাংলাদেশির মরদেহ নিয়ে গেছে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী কোরআন পোড়ানো সেই ব্যক্তিকে পাওয়া গেছে মৃত অবস্থায় সকল বাধা ও শৃঙ্খল থেকে মুক্তি পেতে হলে শক্তভাবে দাঁড়াতে হবে বলেন বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর আমীর ডা. শফিকুর রহমান বেগম খালেদা জিয়াকে সরকার টার্গেট করেছে বেগম খালেদা জিয়াকে সিসিইউতে নেওয়া হয়েছে বাগেরহাটের কচুয়ায় ১০ টাকায় ঈদ সামগ্রী মার্কিনিদের নির্দেশেই বিএনপি আগুন দিয়ে গাড়ি পুড়িয়েছে নাটোরে নবম শ্রেণীর শিক্ষার্থীকে কুপিয়ে হত্যা চট্টগ্রামের পতেঙ্গায় ফিশিং বোটে আগুন বরিশালে মসজিদে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে ভারতে একসাথে নিষিদ্ধ হলো ১৩ হাজার মাদ্রাসা গো-মাতার রক্ষকরাই যখন ভক্ষক আপনার স্মার্টফোনটিকে হ্যাকারদের হাত থেকে রক্ষা করতে হলে কি কি পদ্ধতি অবলম্বন করতে পারেন ইন্দোনেশিয়ায় নৌকাডুবির ঘটনায় অন্তত ৬৯ রোহিঙ্গা শরণার্থীকে উদ্ধার করা হয়েছে ভারতে নির্মাণাধীন সেতু ধসে নিহত ১ আল্লাহর দেয়া ফিতরাতকে ধ্বংস করার নানা আয়োজন চলছে বললেন মিজানুর রহমান আজহারী মাওলানা তারেক জামিলের সড়ক দুর্ঘটনার মিথ্যা খবর প্রচার করা হচ্ছে সোশ্যাল মিডিয়াতে বাংলাদেশের জোরদার হচ্ছে ভারতীয় পণ্য বর্জনের আন্দোলন

যাকাতের নিসাব ও বন্টনের খাত

অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশিত: মঙ্গলবার, ৯ এপ্রিল, ২০২৪, ১:২৭ অপরাহ্ন
যাকাতের নিসাব ও বন্টনের খাত

ছবিঃ freepik

5 মিনিটে পড়ুন

যাকাত زكاة এটি একটি আরবি শব্দ যার অর্থ ‎‎ “পরিশুদ্ধকরণ, পবিত্র করা, বৃদ্ধি পাওয়া, বরকত হওয়া ইত্যাদি ”।

যেমন কোরআনে বর্ণিত রয়েছে:

والزكاة بمعنى: المدح، قال الله تعالى: فلا تزكوا أنفسكم

যাকাত এর পরিভাষিক অর্থ:

নিজ অর্জিত ধন-সম্পদ থেকে আল্লাহ কর্তৃক সুনির্দিষ্ট ও ফরজকৃত অংশ দেওয়া। যেমন ফুকাহায়ে কেরাম বলেন:

والزكاة في اصطلاح علماء الفقه هي: حصة من المال يجب دفعه للمستحقين

أو: الجزء المخصص للفقير والمحتاج من أموال الغني أو

هي: تمليك المال من فقير مسلم غير هاشمي، ولا مولاه بشرط قطع المنفعة عن المملك من كل وجه لله تعالى

হাশিমী বংশের লোক ব্যতীত কোন গরিব মুসলমানকে মালের মালিক বানিয়ে দেওয়া। এবং মনিব গোলাম থেকে কোন উপকার নেওয়ার শর্ত করা ব্যতীত। একমাত্র আল্লাহকে রাজী-খুশী করার উদ্দেশ্যে।

যাকাত কী?

ইসলামের পাঁচটি স্তম্ভের মধ্যে যাকাত অন্যতম।

ইসলামের নবী হযরত মোহাম্মদ ( সাঃ ) যখন ৬২২ খ্রিষ্টাব্দে মদিনায় গিয়ে ইসলামী রাষ্ট্র ব্যবস্থা চালু করেন, তখন সে রাষ্ট্রে যাকাত ব্যবস্থা চালু হয়।

পবিত্র ধর্মগ্রন্থ কোরআন শরীফে যাকাত সম্পর্কে নির্দেশনা দেয়া আছে।

কাদের ওপর যাকাত ফরয?

স্বাধীন, পূর্ণবয়স্ক মুসলিম নর-নারীর কাছে নিসাব পরিমাণ সম্পদ থাকলে কতিপয় শর্তসাপেক্ষে তার উপর যাকাত ফরয হয়ে থাকে।

         যেমন:

১. সম্পদের উপর পূর্ণ মালিকানা
সম্পদের উপর যাকাত ওয়াজিব হওয়ার জন্য সম্পদের মালিকানা সুনির্দিষ্ট হওয়া আবশ্যক। অর্থাৎ সম্পদ, মালিকের অধিকারে থাকা, সম্পদের উপর অন্যের অধিকার বা মালিকানা না থাকা এবং নিজের ইচ্ছামতো সম্পদ ভোগ ও ব্যবহার করার পূর্ণ অধিকার থাকা। যেসকল সম্পদের মালিকানা সুসস্পষ্ট নয়, সেসকল সম্পদের কোনো যাকাত নেই, যেমন: সরকারি মালিকানাধীন সম্পদ। অনুরূপভাবে জনকল্যাণমূলক কাজের জন্য ওয়ক্‌ফকৃত সম্পদের উপরেও যাকাত ধার্য হবে না। তবে ওয়াক্‌ফ যদি কোনো ব্যক্তি বা গোত্রের জন্য হয়, তবে তার উপর যাকাত দিতে হবে।
২. সম্পদ উৎপাদনক্ষম হওয়া
যাকাতের জন্য সম্পদকে অবশ্যই উৎপাদনক্ষম, প্রবৃদ্ধিশীল হতে হবে, অর্থাৎ সম্পদ বৃদ্ধি পাবার যোগ্যতাই যথেষ্ট। যেমন: গরু, মহিষ, ব্যবসায়ের মাল, নগদ অর্থ ব্যবসায়িক উদ্দেশ্যে ক্রীত যন্ত্রপাতি ইত্যাদি মালামাল বর্ধনশীল। অর্থাৎ যেসকল মালামাল নিজের প্রবৃদ্ধি সাধনে সক্ষম নয়, সেসবের উপর যাকাত ধার্য হবে না, যেমন: ব্যক্তিগত ব্যবহারের মালামাল, চলাচলের বাহন ইত্যাদি।
৩. নিসাব পরিমাণ সম্পদ
যাকাত ফরয হওয়ার তৃতীয় শর্ত হচ্ছে শরীয়ত নির্ধারিত সীমাতিরিক্ত সম্পদ থাকা। সাধারণ ৫২.৫ তোলা রূপা বা ৭.৫ তোলা স্বর্ণ বা উভয়টি মিলে ৫২.৫ তোলা রূপার সমমূল্যের সম্পদ থাকলে সে সম্পদের যাকাত দিতে হয়। পশুর ক্ষেত্রে এই পরিমাণ বিভিন্ন (বিস্তারিত: ‘যাকাত প্রদানের নিয়ম’ দ্রষ্টব্য)।
৪. মৌলিক প্রয়োজনাতিরিক্ত সম্পদ থাকা
সারা বছরের মৌলিক প্রয়োজন মিটিয়ে যে সম্পদ উদ্ধৃত থাকবে, শুধুমাত্র তার উপরই যাকাত ফরয হবে।
এপ্রসঙ্গে আল-কুরআনে উল্লেখ রয়েছে: লোকজন আপনার নিকট (মুহাম্মদের  [সাঃ]  নিকট) জানতে চায়, তারা আল্লাহর পথে কী ব্যয় করবে? বলুন, যা প্রয়োজনের অতিরিক্ত। আল্লাহ এভাবেই তোমাদের জন্য সুস্পষ্ট বিধান বলে দেন।

মুহাম্মদ সাঃ এর সহচর আবদুল্লাহ ইবনে আব্বাস বলেছেন,

“অতিরিক্ত বলতে পরিবারের ব্যয় বহনের পর যা অতিরিক্ত বা অবশিষ্ট থাকে তাকে বুঝায়”

জনাব ইউসুফ আল কারযাভী’র মতে স্ত্রী, পুত্র, পরিজন, ও পিতামাতা এবং নিকটাত্মীয়দের ভরণ-পোষণও মৌলিক প্রয়োজনের অন্তর্ভুক্ত।

৫. ঋণমুক্ততা
নিসাব পরিমাণ সম্পদ হলেও ব্যক্তির ঋণমুক্ততা, যাকাত ওয়াজিব হওয়ার অন্যতম শর্ত। যদি সম্পদের মালিক এত পরিমাণ ঋণগ্রস্থ হন যা, নিসাব পরিমাণ সম্পদও মিটাতে অক্ষম বা নিসাব পরিমাণ সম্পদ তার চেয়ে কম হয়, তার উপর যাকাত ফরয হবে না। ঋণ পরিশোধের পর নিসাব পরিমাণ সম্পদ থাকলেই কেবল যাকাত ওয়াজিব হয়। তবে এক্ষেত্রে দ্বিতীয় মতটি হলো: যে ঋণ কিস্তিতে পরিশোধ করতে হয় সে ঋণের ক্ষেত্রে যেবছর যে পরিমাণ ঋণ পরিশোধ করতে হয়, সেবছর সে পরিমাণ ঋণ বাদ দিয়ে বাকিটুকুর উপর যাকাত দিতে হয়। কিন্তু ঋণ বাবদ যাকাত অব্যাহতি নেয়ার পর অবশ্যই ঋণ পরিশোধ করতে হবে। অন্যথায় সে সম্পদের উপর যাকাত দিতে হবে।
৬. সম্পদ এক বছর আয়ত্তাধীন থাকা
নিসাব পরিমাণ স্বীয় সম্পদ ১ বছর নিজ আয়ত্তাধীন থাকা যাকাত ওয়াজিব হওয়ার পূর্বশর্ত।তবে কৃষিজাত ফসল, খনিজ সম্পদ ইত্যাদির যাকাত (উশর) প্রতিবার ফসল তোলার সময়ই দিতে হবে। ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানে ও কোম্পানীর ক্ষেত্রে বছর শেষে উদ্বর্তপত্রে (Balance Sheet) বর্ণিত সম্পদ ও দায়-দেনা অনুসারে যাকাতের পরিমাণ নির্ধারিত হবে।

যাকাত বণ্টনের খাতসমূহ 

পবিত্র কুরআনের সূরা আত-তাওবার ৬০ নাম্বার আয়াতে যাকাত বণ্টনে আটটি খাত আল্লাহ তায়ালা নির্ধারন করেছেন। । এই খাতগুলো সরাসরি কুরআন দ্বারা নির্দিষ্ট এবং যেহেতু তা আল্লাহর নির্দেশ, তাই এর বাইরে যাকাত বণ্টন করলে তা ইসলামী শরিয়তসম্মত হয় না।

  1. ফকির (যার কিছুই নেই)
  2. মিসকীন(যার নেসাব পরিমাণ সম্পদ নেই)
  3. যাকাত আদায়ে নিযুক্ত কর্মচারী (যার অন্য জীবিকা নেই)
  4. নওমুসলিমদের(আর্থিক সংকটে থাকলে)
  5. ক্রীতদাস(মুক্তির উদ্দেশ্যে)
  6. ধনী সম্পদশালী ব্যক্তি যার সম্পদের তুলনায় ঋণ বেশি
  7. (স্বদেশে ধনী হলেও বিদেশে) আল্লাহর পথে জিহাদে রত ব্যক্তি
  8. মুসাফির (যিনি ভ্রমণকালে অভাবে পতিত)

হাদিসমতে, এগুলো ফরয সাদকাহের খাত, এবং নফল সাদকাহ এই আট খাতেই সীমাবদ্ধ নয়, বরং এর পরিসর আরো প্রশস্ত।

“এই তথ্যগুলি অনলাইন থেকে সংগ্রহ করা হয়েছে কোন ভুল থাকলে ক্ষমার দৃষ্টিতে দেখবেন এবং কমেন্টে লিখে জানাবেন ভুল হয়েছে ।”

Heat Wave Warning

বাংলাদেশে তীব্র তাপপ্রবাহ( Heat Wave Warning ): তিন দিনের সতর্কতা জারি

অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশিত: শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল, ২০২৪, ৬:০২ অপরাহ্ন
বাংলাদেশে তীব্র তাপপ্রবাহ( Heat Wave Warning ): তিন দিনের সতর্কতা জারি

ছবি : সংগৃহীত

1 মিনিটে পড়ুন

বাংলাদেশের মৌসুম বিজ্ঞান বিভাগ এক জরুরি বার্তায় জানিয়েছে, দেশের বিভিন্ন অংশে তাপমাত্রা ৪০°C ছাড়িয়ে যাওয়ায় তিন দিনের জন্য তীব্র তাপপ্রবাহের সতর্কতা জারি করা হয়েছে। এই সময়ে আর্দ্রতা বৃদ্ধি পাওয়ায় অস্বস্তি আরও বাড়তে পারে।

১৯  এপ্রিল জারি করা এই সতর্কতা অনুযায়ী, আগামী ৭২ ঘণ্টা ধরে এই তাপপ্রবাহ অব্যাহত থাকবে এবং আরও তীব্র হতে পারে। এই সময়ে মানুষজনকে বেশি পানি পান করা, ভেজা কাপড় দিয়ে মুখ ও ঘাড় মুছে নেওয়া, সম্ভব হলে ছায়ায় বিশ্রাম নেওয়ার মতো সতর্কতা গ্রহণ করার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

ইরানে ইসরাইলের হামলা : মধ্যপ্রাচ্যে বেজে উঠেছে যুদ্ধের দামামা

অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশিত: শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল, ২০২৪, ১:২১ অপরাহ্ন
ইরানে ইসরাইলের হামলা : মধ্যপ্রাচ্যে বেজে উঠেছে যুদ্ধের দামামা

ছবি : সংগৃহীত

1 মিনিটে পড়ুন

শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪ তারিখে ইরানের ইসফাহান শহরে ইসরাইল ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে। এই হামলায় ইসফাহানের আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরের কাছে বিস্ফোরণ ঘটেছে এবং ইরানের বড় কয়েকটি শহরে বিমান চলাচল স্থগিত ঘোষণা করা হয়েছে। ইসফাহান প্রদেশে ইরানের বড় একটি বিমান ঘাঁটি, অন্যতম একটি ক্ষেপণাস্ত্র উৎপাদন কারখানা ও বেশ কয়েকটি পরমাণু স্থাপনা রয়েছে।

বিবিসি ও অন্যান্য গণমাধ্যমের প্রতিবেদন অনুযায়ী, ইসরাইল এই হামলা চালায় ইরানের শত শত ক্ষেপণাস্ত্র ও ড্রোন হামলার জবাবে। ইরানি রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন জানিয়েছে, বিস্ফোরণের পর ইসফাহানের আকাশে তিনটি ড্রোন ধ্বংস করা হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্র ইসরাইলকে শান্ত থাকার ও কোনও হামলা না চালানোর অনুরোধ জানিয়েছিল, কিন্তু ইসরাইল সেটা উপেক্ষা করেই হামলা শুরু করে।

এই ঘটনার প্রেক্ষাপটে, মধ্যপ্রাচ্যে যুদ্ধের আশঙ্কা বেড়ে গেছে। ইরান ও ইসরাইলের মধ্যে এই সংঘাত আন্তর্জাতিক সম্পর্কের জটিলতা আরও বাড়িয়ে তুলেছে এবং এই অঞ্চলের শান্তি প্রক্রিয়াকে আরও জটিল করে তুলেছে।

**উৎসসমূহ:**

– বাংলা ট্রিবিউন

– BBC News বাংলা

স্ন্যাপড্রাগন এক্স ল্যাপটপ: প্রজন্মের পরিবর্তনের সাক্ষী

অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, ১৮ এপ্রিল, ২০২৪, ২:২৫ অপরাহ্ন
স্ন্যাপড্রাগন এক্স ল্যাপটপ: প্রজন্মের পরিবর্তনের সাক্ষী

সূত্র: ওয়াকিংক্যাট (এক্স/টুইটার)

1 মিনিটে পড়ুন

কোয়ালকমের স্ন্যাপড্রাগন এক্স এলিট চিপসেট নিয়ে আসছে এক নতুন যুগের সূচনা। এই চিপসেটটি উচ্চ-কার্যকারিতা এবং দীর্ঘ ব্যাটারি জীবনের সমন্বয়ে উইন্ডোজ অন আর্ম প্ল্যাটফর্মে নতুন মাত্রা যোগ করছে। স্ন্যাপড্রাগন এক্স এলিটের সিঙ্গেল-কোর স্কোর আসন্ন অ্যাপল এবং ইন্টেল লঞ্চের বিরুদ্ধে একটি শক্তিশালী অবস্থান নিয়েছে, যা এর শক্তি প্রদর্শন করে। এই চিপসেটটি একটি উচ্চ মানের অ্যাড্রেনো জিপিইউ এবং হেক্সাকোর এনপিইউ সহ আসে, যা গেমিং পারফরম্যান্সে “পারফেক্টলি প্লেয়েবল” অভিজ্ঞতা দেয়।

স্ন্যাপড্রাগন এক্স এলিটের বিশেষ উল্লেখগুলি হলো:

  • এআই ক্ষমতা: এই চিপসেটটি ডিভাইসে ১৩ বিলিয়ন প্যারামিটার পরিচালনা করতে পারে এবং প্রতি সেকেন্ডে ৩০ টোকেন উৎপন্ন করতে পারে।
  • র‌্যাম এবং স্টোরেজ: এটি এলপিডিডিআর৫এক্স র‌্যাম সমর্থন করে, যার মেমোরি ব্যান্ডউইথ ১৩৬ জিবি/সেকেন্ড পর্যন্ত এবং ৪২এমবি মোট ক্যাশের সাথে পিসিআই জেন৪ বা ইউএফএস ৪.০ স্টোরেজ সমর্থন করে।
  • পারফরম্যান্স: সর্বশেষ গিকবেঞ্চ ৬ ফলাফল পূর্ববর্তী বেঞ্চমার্ক ফলাফলের তুলনায় ৪৯% পারফরম্যান্স উন্নতি দেখায়।

মূল্য নির্ধারণের ক্ষেত্রে, স্যামসাংয়ের স্ন্যাপড্রাগন এলিট এক্স-চালিত গ্যালাক্সি বুক৪ এজ প্রায় €১৮০০ এ লঞ্চ হবে, যা প্রিমিয়াম ইন্টেল এবং অ্যাপল বিকল্পগুলির সাথে তুলনীয় মূল্য।